ঢাকাশনিবার , ২ ডিসেম্বর ২০১৭
                     
আজকের সর্বশেষ সবখবর

পেঁয়াজের ঝাঁঝ বাড়তে না বাড়তেই বেড়েছে মরিচের ঝাল

admin
ডিসেম্বর ২, ২০১৭ ১:০১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

খবর২৪ঘণ্টা.কম,ডেস্ক: পেঁয়াজের দামে চলছে লাফালাফি। এই বাড়ে তো এই কমে, এই কমে তো এই বাড়ে। পেঁয়াজের ঝাঁঝ বাড়তে না বাড়তেই বেড়ে গেছে মরিচের ঝাল। একদিনের ব্যবধানে কাঁচা মরিচের দাম বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছে। ক্রেতা মুখে তুলবেন কী, দামের ঝালেই লাল!

রাজধানীর কাঁচাবাজারগুলোতে প্রতিকেজি কাঁচা মরিচ বিক্রি হচ্ছে ২০০ থেকে ২৫০ টাকায়। শুক্রবার রাজধানীর কারওয়ান বাজার, হাতিরপুল বাজারসহ কয়েকটি বাজার ঘুরে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

রাজধানীর কয়েকটি বাজার ঘুরে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ব্যবসায়ীরা প্রতিকেজি মরিচ বিক্রি করছেন ১৮০ থেকে ২০০ টাকায়। এছাড়া বাজারে কোনো ব্যবসায়ী ১০০ গ্রাম মরিচ ২০ টাকা এবং ২৫০ গ্রাম মরিচ ৫০ টাকার নিচে বিক্রি করছেন না। অথচ একদিন আগেও ব্যবসায়ীরা ২৫০ গ্রাম মরিচ ২৫ থেকে ৩০ টাকায় বিক্রি করেছেন।

কলাবাগানের বশিরউদ্দিন রোডের একটি হোস্টেল পরিচালনা করেন মো. সুমন নামে এক যুবক। কারওয়ান বাজারে থেকে শাকসবজি, মাছ-মাংস কিনে থাকেন তিনি। পণ্যের তালিকায় সব সময় থাকে কাঁচা মরিচ। কিন্তু আজ দেখা গেল, কাঁচাবাজারের একপ্রান্ত থেকে আরেক প্রান্তে ঘুরে ঘুরে কাঁচা মরিচের দাম যাচাই করছেন সুমন।

কাঁচা মরিচের ব্যাপারী মো. মিলন মিয়ার আড়ত থেকে এক পাল্লা (পাঁচ কেজি) কাঁচা মরিচ কেনার সময় ভুরু কুঁচকে ছিলেন তিনি। সুমন বলেন, পাঁচ কেজির দাম এক হাজার টাকা। এক কেজি কাঁচা মরিচের পাইকারি মূল্য ২০০ টাকা। এই দামে মরিচ কিনলে চেহারা এমন হবে না তো কী হবে?

বৌ-বাজারের কাঁচাসবজি ব্যবসায়ী মো. বেলায়েত বলেন, আড়তে মরিচের দাম বেড়ে গেছে। বুধবারের তুলনায় আজ (শুক্রবার) দিগুণ দাম দিয়ে আড়ত থেকে মরিচ আনতে হয়েছে।

বাজারটির এক ব্যবসায়ী জানান, বাজারে মরিচের সরবরাহ কম, তাই দাম বেড়ে গেছে। একদিন আগেও ২৫০ গ্রাম মরিচ ৩০ থেকে ৩৫ টাকায় বিক্রি করেছি। সেই মরিচ এখন ৬০ টাকা পোয়া (২৫০ গ্রাম) বিক্রি করতে হচ্ছে।

মো. আবুল হোসেন নামের এক ক্রেতা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, একের পর এক জিনিসের দাম বাড়লেও কেউ কোনো পদক্ষেপ নিচ্ছে না। পেঁয়াজ-মরিচের দাম যেভাবে বাড়ছে তাতে আমাদের জীবন চালানো দুরহ হয়ে পড়বে।

খবর২৪ঘণ্টা.কম/রখ

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।