ঢাকাসোমবার , ৪ ডিসেম্বর ২০১৭
                     
আজকের সর্বশেষ সবখবর

পাবনায় সাংবাদিকদের মারধরের প্রতিবাদে মানববন্ধন

admin
ডিসেম্বর ৪, ২০১৭ ৩:২৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

পাবনা ব্যুরো: পাবনা জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও ভুমিমন্ত্রী শামসুর রহমান শরীফ ডিলু‘র ছেলের নেতৃত্বে পাবনার ৪ সাংবাদিকের ওপর নৃশংস হামলার প্রতিবাদে এবং দোষীদের গ্রেফতারের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসুচি পালন করেছেন পাবনায় কর্মরত গণমাধ্যমকর্মীরা।
পাবনা প্রেসক্লাবের সামনে সোমবার সকাল সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত এই মানববন্ধনে পাবনায় কর্মরত সকল সাংবাদিক অংশ নেন। মানববন্ধন থেকে ভূমিমন্ত্রীর ছেলে ঈশ্বরদী উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শিরহান শরীফ তমাল ও তার ক্যাডার রাজিবসহ সংবাদিকদের ওপর হামলা মামলার সকল আসামীদের অবিলম্বে গ্রেফতারের জোর দাবি জানানো হয়।
মানবন্ধন সমাবেশে বক্তব্য দেন, পাবনা প্রেসক্লাবের সভাপতি প্রফেসর শিবজিত নাগ, সহ-সভাপতি কামাল আহমেদ সিদ্দিকী, আখতারুজ্জামান আখতার, সম্পাদক আঁখিনূর ইসলাম রেমন, পাবনা সংবাদপত্র পরিষদের সভাপতি আব্দুল মতীন খান, প্রেসক্লাবের সাহিত্য-সাংস্কৃতিক সম্পাদক ছিফাত রহমান সনম, কল্যান সম্পাদক সরোয়ার মোর্শেদ উল্লাস, সাবেক সহ-সভাপতি মির্জা আজাদ, বাংলাদেশ বেতারের প্রতিনিধি সুশীল তরফদার, সাবেক সম্পাদক সমকাল ও এনটিভি প্রতিনিধি এবিএম ফজলুর রহমান, সাবেক সম্পাদক কালের কন্ঠ ও নিউজ টোয়েন্টিফোর প্রতিনিধি আহমেদ-উল-হক রানা, সাবেক সম্পাদক ও মাছরাঙা টেলিভিশনের উত্তরাঞ্চল ব্যুরো চীফ উৎপল মির্জা, ডেইলী স্টার প্রতিনিধি আহমেত হুমায়ুন কবির তপু, পাবনা টেলিভিশন সাংবাদিক সমিতির আহবায়ক, একুশে টিভি ও মানবজমিন প্রতিনিধি রাজিউর রহমান রুমী, বাংলাদেশ টুডের প্রতিনিধি আব্দুল হামিদ খান, এসএ টিভির প্রতিনিধি কলিট তালুকদার, একাত্তর টেলিভিশনের প্রতিনিধি মোস্তাফিজুর রহমান রাসেল প্রমুখ।
উল্লেখ্য, পাবনার ঈশ্বরদীতে প্রধানমন্ত্রীর সফরের আগের দিন ২৯ নভেম্বর রুপপুর পারমানবিক প্রকল্পের সাইট অফিসের গেটে ভুমিমন্ত্রীর ছেলে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শিরহান শরিফ তমাল এবং সাধারন সম্পাদক রাজিব সরকারের নেতৃত্বে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা সময় টিভি ও বাংলাদেশ প্রতিদিনের পাবনা প্রতিনিধি সৈকত আফরোজ আসাদ, এটিএন নিউজের পাবনা প্রতিনিধি রিজভী রাইসুল ইসলাম জয়, ডিবিসি নিউজের পাবনা প্রতিনিধি পার্থ হাসান ও ক্যামেরাপার্সন মিলন হোসেনকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। এ ঘটনায় ঈশ্বরদী থানায় শিরহান শরিফসহ ২৫/৩০ জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করা হয়। কিন্ত ৪ দিন অতিবাহিত হলেও পুলিশ মুল হোতাদের গ্রেফতার করতে পারেনি। বরং বিভিন্ন চুরি, মাদক মামলার আসামী গ্রেফতার করে এই মামলার আসামী হিসেবে পুলিশ প্রশাসন সাংবাদিকের চোখে ধুলো দেবার চেষ্টা করছে।

 

বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।